মাসফিকুল হোসাইন: চট্টগ্রাম  সিটি কর্পোরেশনের শিক্ষা-স্বাস্থ্য,সমাজকল্যাণ,অর্থ ও সংস্থাপন, পরিবেশ উন্নয়ন, দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা, আইন শৃংখলা, ক্রীড়া, বস্তি উন্নয়ন ও নগর পরিকল্পনা বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

আজ চসিক কনফারেন্স হলে অনুষ্ঠিত সভায় সিটি মেয়র আ জ ম নাছির ‍উদ্দীন নগরীর ৪১ ওয়ার্ডে ৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে এলইডি আলোকায়ন প্রকল্প বাস্তবায়নের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন। 

এসময় তিনি আরো উল্লেখ করেন,থোক বরাদ্দ থেকে ২৫০ কোটি টাকায় নগর উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এই প্রকল্পে নগরীর সড়ক,নালা,নর্দমা সংস্কার কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে। বাণিজ্যিক অঞ্চল খাতুনগঞ্জের জলাবদ্ধতা নিরসনে চাক্তাই খাল খনন প্রকল্পও হাতে নেয়া হয়েছে।এছাড়া ইতোমধ্যে ৭১৬ কোটি টাকার নগর উন্নয়ন প্রকল্প একনেকে অনুমোদিত হয়েছে। ২১০ টাকার আরো কয়েকটি প্রকল্প অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে। তিনি বলেন, এসব উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে হলে সরকার নির্দেশিত প্রকল্প বাস্তবায়ন নীতিমালা অনুযায়ী সিটি কর্পোরেশনকে ৩০শতাংশ প্রকল্প ব্যয় নির্বাহ করতে হবে। এই ব্যয় নির্বাহের জন্য সিটি কর্পোরেশনের রাজস্ব আয় অন্যতম নিয়ামক শক্তি। কাজেই সঠিক রাজস্ব আদায়ে আমাদেরকে শতভাগ সচেষ্ট হতে হবে। 

এ লক্ষ্যে ৪১ ওয়ার্ডে এসেসমেন্ট কার্যক্রম চলমান রয়েছে। তবে গরীব,হত দরিদ্র হোল্ডারদেরকে করমুক্তির আওতায় রাখা হবে।

তিনি বলেন, স্থায়ী কমিটির সিদ্ধান্ত ও প্রস্তাবনার উপর নাগরিক সেবা অনেকাংশে নির্ভর করে এবং নাগরিক সেবা সংক্রান্ত যাবতীয় পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা হয়। সকল নগর উন্নয়ন পরিকল্পনা বাস্তবায়নে স্থায়ী কমিটিগুলোকে কার্যকর ভূমিকা পালন করতে হবে। সিদ্ধান্ত গ্রহণের ক্ষেত্রে স্থায়ী কমিটিগুলো ইতোমধ্যে তাদের দক্ষতা ও কর্মক্ষমতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে সক্ষম হয়েছে, যা অনুসরনীয় দৃষ্টান্ত।

সভায় স্থায়ী কমিটি সমূহের সভাপতি কাউন্সিলর শফিউল আলম, নাজমুল হক ডিউক,ইসমাইল বালী,গোলাম মোহাম্মদ জোবায়ের, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন খালেদ, মো. আবুল হাশেম, মো. জহুরুল আলম জসিম, এইচ এম সোহেল সভাপতিত্বে সংশ্লিষ্ট স্থায়ী কমিটির সদস্য সচিব মোহাম্মদ আবুল হোসেন, নাজিয়া শিরিন, লে.কর্নেল মহিউদ্দিন আহমেদ, সনজীদা শরমিন, নগর পরিকল্পনাবিদ একেএম রেজাউল করিমসহ কমিটির সকল সদস্য ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

ভাগ

কোন মন্তব্য নেই